[ আমরা সম্মিলিত অনুশীলনের ভিত্তিতে, মানুষ ও মনুষ্যত্বের মুক্তিতে, মানবীয় মর্যাদা প্রতিষ্ঠার মহতী সংগ্রামে- আমাদের আদর্শিক সত্তা ও সমন্বয়ক দিশারী শ্রদ্ধেয় ‘বড়দা (আব্দুর রাজ্জাক মুল্লাহ রাজু শিকদার)’র নির্দেশিত পথই- সংগঠন ও সংগঠন কাঠামোর ক্ষেত্রে মতাদর্শিক দিশা হিসেবে গৃহীত; সেই আলোকেই অত্র প্রকাশনা অনুমোদিত। ]



মেনু

৭ দিনের সংবাদ দুনিয়া

 
দুই কোটির বেশি মানুষ অনাহার ও দুর্ভিক্ষের হুমকিতেঃ জাতিসংঘ
১১-০৩-২০১৭

ইয়েমেন, সোমালিয়া, দক্ষিণ সুদান এবং নাইজেরিয়ায় দুই কোটির বেশি মানুষ অনাহার ও দুর্ভিক্ষের হুমকিতে রয়েছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ। সংস্থাটি বলছে, ১৯৪৫ সালে জাতিসংঘ প্রতিষ্ঠার পর থেকে এপর্যন্ত এটিই বিশ্বের সবচেয়ে ভয়াবহ মানবিক সংকট।

 

শুক্রবার নিরাপত্তা পরিষদে এক বৈঠকে জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক প্রধান স্টিফেন ও’ব্রায়েন বলেন, “আমরা ইতিহাসের সন্ধিক্ষণে দাঁড়িয়ে আছি। এ বছরের শুরুতে এরই মধ্যে বিশ্বজুড়ে যে মানবিক সংকট দেখা দিয়েছে তা জাতিসংঘ গঠনের পর সবচেয়ে ভয়াবহ বিপর্যয়।” তিনি বলেন, “বর্তমানে মাত্র চারটি দেশেই দুই কোটির বেশি মানুষকে অনাহার ও দুর্ভিক্ষ মোকাবেলা করতে হচ্ছে। এই বিপর্যয় এড়াতে জুলাই মাসের মধ্যে ৪৪০ কোটি মার্কিন ডলার প্রয়োজন। আমাদের কাছে পর্যাপ্ত রসদ নেই।  যৌথ ও সমন্বিত বৈশ্বিক প্রচেষ্টা ছাড়া শুধুমাত্র না খেতে পেয়ে বহু মানুষের মৃত্যু হবে। এছাড়ও অনেকে রোগে ভুগে মারা যাবে।”

 

স্টিফেন আরো বলেন, শিশুদের বুদ্ধি বিকাশ ব্যাহত হচ্ছে। তারা স্কুলে যেতে পারছে না। মানুষের জীবন-জীবিকা, ভবিষ্যৎ ও আশা হারিয়ে যাচ্ছে। অনেকে গৃহহারা হয়ে পড়েছে। তারা টিকে থাকার জন্য লড়াই করে যাচ্ছে। এদিকে জাতিসংঘের শিশু বিষয়ক সংস্থা ইউনিসেফ এরই মধ্যে সতর্ক করে বলেছে, বিশ্ব জুড়ে এ বছর প্রায় ১৪ লাখ শিশুর ক্ষুধায় মারা যাওয়ার আশংঙ্কা রয়েছে ।

 

মানবসৃষ্ট যুদ্ধ, খরা আর অনাবৃষ্টিতে বিপর্যস্ত এসব মানুষের পাশে দাঁড়াতে বিশ্বের সকল দেশের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে জাতিসংঘ।

 

সূত্রঃ এএফপি ও বিবিসি